সোমবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২১, ০২:৪২ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
পপুলার লাইফের প্রধান কার্যালয়ে ক্লোজিং উপলক্ষে ব্যবসা উন্নয়ন সভা ও বীমা দাবীর চেক হস্তান্তর সিরাজগঞ্জে স্বাধীনতার সূর্বণজয়ন্তী ও মুজিববর্ষ উপলক্ষ্যে- মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মাননা প্রদান সীতাকুণ্ডে মসজিদকে দুই ভাগে বিভক্ত করার প্রতিবাদে মুসল্লিদের বিক্ষোভ গাইবান্ধায় জাতীয় ভিটামিন ‘এ’ প্লাস ক্যাম্পেইন উপলক্ষে সিভিল সার্জনের ওরিয়েন্টেশন কর্মশালা ভালুকায় আন্তর্জাতিক স্বেচ্ছাসেবী দিবস পালন কামারখন্দে মেম্বার পদপ্রার্থীর গণসংযোগ কামারখন্দে মেম্বার পদপ্রার্থীর গণসংযোগ গাজীপুরে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ  ৬ ডিসেম্বর লালমনিরহাট হানাদার মুক্ত দিবস! কোটচাঁদপুরে নারী নির্যাতন প্রতিরোধ পক্ষ-২০২১ উপলক্ষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত

উল্লাপাড়ায় প্রধান শিক্ষক কর্মে ফাঁকী ও বদলী বানিজ্যের অভিযোগ

Reportar Name
  • সময় কাল : মঙ্গলবার, ১৭ মার্চ, ২০২০
  • ২০৩ বার পড়া হয়েছে

উল্লাপাড়া(সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধি:

সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়ায় দূর্গানগর ইউনিয়নের ভাটবেড়া মাহমুদপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ফরিদ উদ্দিন কর্মে ফাঁকী ও বদলী বানিজ্যের অভিযোগ পাওয়া গেছে। শিক্ষাই জাতির মেরুদন্ড এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে বর্তমান জনবান্ধব শিক্ষামুখী সরকার প্রাথমিক শিক্ষাকে জনগনের দোড়গোরে পৌছে দেওয়ার জন্য নিরলশ ভবে কাজ করে যাচ্ছে। এ ক্ষেত্রে প্রধান শিক্ষক ফরিদ উদ্দিন সরকারের এই পদক্ষেপের প্রতি সচেষ্ট না হয়ে তিনি বিধান বর্হিভ্থত ভাবে মাত্র ২ শতাধিক শিক্ষার্থীদের জন্য ৮ জন শিক্ষক এই প্রতিষ্ঠানে পাঠদানের জন্য রেখেছে। অথচ বিধান মতে প্রতি ৪০ জনে ১ জন হিসেবে মোট ৫ জন শিক্ষক থাকার কথা ।

এ ব্যাপারে ২ জন শিক্ষকের বদলির জন্য রেজুলেশন করা হলেও উপজেলা শিক্ষক সমিতির সভাপতি ফরিদ উদ্দিন তার ক্ষমতা বলে বদলির বিষয়টি আজও সুরাহা হয়নি বলে জানা গেছে। স্থানীয়দের অভিযোগে জানা যায়, তিনি সভাপতি হওয়ায় প্রায়ই নিজ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে দায়িত্ব পালন না করে বিভিন্ন শিক্ষকদের বদলী নিয়ে উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তার কার্যালয়ে তদবিরের জন্য ব্যস্ত থাকেন।

স্থানীয়রা আরো জানান, প্রধান শিক্ষকের কর্মে ফাঁকী দেওয়ার ফলে কোমল মতি শিক্ষার্থীরা সঠিক শিক্ষা ও পাঠদান থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। এবিষয়ে উল্লাপাড়া উপজেলা সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা আব্দুল্লাহ আল-মাহমুদ এর সাথে মুঠোফোনে কথা হলে তিনি জানান, বিষয়টি আমার জানা নেই তবে শিক্ষক সমিতির নেতা হওয়ার করনে ২-১ জন শিক্ষক তার কাছে বদলি বিষয়ে যেতে পারে।

এবিষয়ে প্রধান শিক্ষক ফরিদ উদ্দিনের সাথে মুঠোফোনে কথা হলে তিনি জানান, বিষয়টি সত্য নয় তবে শিক্ষার্থীর সংখ্যা ২০৩ জন বলে তিনি জানান। তিনি আরো জানান ১ জন শিক্ষকের বদলির জন্য রেজুলেশন হয়েছিলো।

উল্লেখ্য তার গ্রামের বাড়ি রাজমান এবং তার স্ত্রী রাজমান হাই স্কুলের শিক্ষক হলেও গ্রামে বসবাস না করে পৌর শহরের শ্যামলী পাড়ায় বাসা ভাড়া নিয়ে থাকেন বলে স্থানীয়রা জানান।

Spread the love

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ বিভাগের আরও খবর
এই নিউজ পোর্টাল এর কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ণ বেআইনি ও দণ্ডনীয় অপরাধ ।  About Us | Contact Us | Terms & Conditions | Privacy Policy
Design & Developed by Freelancer Zone
themesba-lates1749691102