বুধবার, ১২ মে ২০২১, ১১:১৩ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
স্ত্রীর সঙ্গে ঝগড়া করে ৯ মাসের শিশুকে আছাড় দিয়ে মেরে ফেললেন বাবা! মানুষের ভিরে জায়গা নেই শিমুলিয়া ঘাটে সিরাজগঞ্জে রক্ত কণিকা ব্লাড ডোনেশন এর ঈদ সামগ্রী বিতরণ মানবিক সহায়তা পেল ১ হাজার দরিদ্র ও দুঃস্থ পরিবার আমবাড়ীতে পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রে উদ্বোধন এমপি উল্লাপাড়া-সলঙ্গা ও রামকৃষ্ণপুর বাসীকে পবিত্র ঈদ-উল-ফিতর শুভেচ্ছা জানিয়েছেন হিরো চেয়ারম্যান ঈদের আগাম শুভেচ্ছা জানালেন সভাপতি-সম্পাদক ছাত্রলীগে এর প্রথম সভাপতি দবিরুল ইসলামের প্রতিকৃতি স্থাপনের জন্য স্মারকলিপি প্রদান শাহজাদপুরে সাবেক এমপি চয়ন ইসলাম ও এ্যাড. আব্দুল হামিদ লাবলু’র ঈদ সামগ্রী বিতরণ শাহজাদপুরে উই উদ্যোক্তাদের পক্ষ থেকে দুঃস্থ তাঁতীদের মাঝে ঈদ সামগ্রী ও ইফতার বিতরণ

জয়পুরহাটের পল্লীতে তুচ্ছ ঘটনায় ৩ গৃহবধূকে বেদম প্রহারের অভিযোগ

কলমের বার্তা ডেস্ক
  • সময় কাল : মঙ্গলবার, ২৭ এপ্রিল, ২০২১
  • ৮২ বার পড়া হয়েছে

 সুলতান মাহমুদ, জয়পুরহাট প্রতিনিধিঃ                                                                                                                                                জয়পুরহাট সদর উপজেলার পাটুরিয়া গ্রামে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে ৩ গৃহবধূকে বেদম প্রহারের অভিযোগ পাওয়া গেছে। গতকাল মঙ্গলবার সকালে ওই ঘটনায় আহত ৩ গৃহবধূকে উদ্ধার করে তাদের স্বজনরা জয়পুরহাট জেলা আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি করে দেন। আহতরা হলেন- পাটুরিয়া দক্ষিনপাড়া গ্রামের কাজেম উদ্দিনের স্ত্রী আমেনা বেগম (৪২), তারেকুল ইসলামের স্ত্রী রেনুয়ারা (২৫) ও আজিনুর রহমানের স্ত্রী নার্গিস আক্তার (৩০)। এ ছাড়া আবারো হুমকি-ধামকি দেওয়া হচ্ছে বলে অভিযোগ করে ওই ৩ নারীর স্বামী ও স্বজনরা মঙ্গলবার দুপুরে সাংবাদিকদের কাছে অভিযোগ করে বলেন, গতকাল সোমবার সকালে তাদের ১ মাস বয়সী এক গরুর বাছুর প্রতিবেশী সাইদুল ইসলামের আম গাছের কয়েকটি পাতা খেয়ে ফেলেছে বলে সাইদুলের পরিবারের লোকজন অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করতে থাকেন। এতে উভয় পক্ষে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে সাইদুলের ছেলে মঞ্জিল ইসলাম (২৫), শাকিল ইসলাম (২১), জোবেদুল আলমের ছেলে ফেরদৌস আলম (৪০) ও ফেরদৌসের ছেলে ইউসুফ আলী (১৯) ওই ৩ নারীকে লাঠি-সোটা দিয়ে বেধরক পেটাতে থাকেন। পরে তাদের আর্তচিৎকারে এলাকাবাসী এগিয়ে আসলে অভিযুক্তরা পালিয়ে যান। পরে আহত নারীদের উদ্ধার করে জয়পুরহাট জেলা আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি করানো হয় বলেও জানান নির্যাতিত নারীদের স্বজনরা। এ ব্যাপারে অভিযুক্তদের পক্ষে ফেরদৌস আলম অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, তারা মারপিটের সাথে জড়িত না হলেও তাদের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ করা হয়েছে। জয়পুরহাট সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) এ কে এম আলমগীর জাহান বলেন, এ ব্যাপারে অভিযোগ পাওয়া গেছে, তদন্ন্ত সাপেক্ষে দোষীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Spread the love
  •  
  •  
  •  

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ বিভাগের আরও খবর
themesba-lates1749691102