মঙ্গলবার, ১৮ মে ২০২১, ০৫:১০ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :

নান্দাইলে রোরো ধানে হিটশক কৃষকের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি

মো.আমিনুল ইসলাম আশিক (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি
  • সময় কাল : শুক্রবার, ৯ এপ্রিল, ২০২১
  • ৭৫ বার পড়া হয়েছে

সোনালী ফসল ফলে কৃষকের ঘরে উঠে নতুন ধান। যে ফসলের মাঠে এতোদিন ছিল সোনালী স্বপ্ন আজ সেখানে রোদে পুড়ে বিমূর্ত আর্তনাদ। যতোই বয়ে যাচ্ছে সময় ততোই বাড়ছে ক্ষতির পরিমান। অসহায় চেয়ে থাকা ছাড়া কিছুই করার নেই আর। এ যেন প্রকৃতির কাছে অসহায় আত্মসমর্পণ!

জানা যায়, গত ৪ এপ্রিল সন্ধ্যায় নান্দাইল উপজেলার উপর দিয়ে বয়ে যাওয়া ৩-৪ ঘন্টার ধূলিঝড় ও গরম বাতাসে বোরো ফসলের ব্যাপক ক্ষতি সাধিত হয়েছে। স্বপ্নে ঘেরা সোনার ফসল হারা মাঠে এখন চলছে কৃষকের বুক ফাটা আর্তনাদ। ধান পরাগয়নের সময় ধান গাছ সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ২৯ডিগ্রি সেলসিয়াস গ্রহণ করতে পারে। কিন্তু রবিবারে দুর্যোগ আবহাওয়ায় তাপমাত্রা ৩৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস ছাড়িয়ে যায়। তাতে করে হিট ইঞ্জুরির ফলে ধানের শীষ শুকিয়ে সাদা হয়ে গেছে। ঝড়ো বাতাসের সাথে গরম হাওয়ার কারণে যে ধান গুলো ফুল অবস্থায় ছিল এসময় তাপমাত্রা বেশি থাকায় পরাগয়ন করতে পারেনি। দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ায় ধানের পরাগ নষ্ট হয়ে চিটা হয়ে গেছে সব ধান। এতে ক্ষতিগ্রস্থ কৃষকদের মাঝে চরম হতাশার সৃষ্টি হয়েছে।

উপজেলার ১৩ টি ইউনিয়নে গরম বাতাসের কারনে প্রায় ২৫০হেক্টর বোরো ধানের ক্ষতি হয়েছে বলে নান্দাইল কৃষি অফিস তথ্য নিশ্চিত করেছে।

এব্যাপারে নান্দাইল উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মোহাম্মদ আনিছুজ্জামান জানান, এটি একটি প্রাকৃতিক দুর্যোগ। এখানে কারো নিয়ন্ত্রণ নেই। ধানের ক্ষতির সবচেয়ে স্পর্শ কাতর সময় হচ্ছে ফ্লাওয়ারিং পিরিয়ড। এই সময়টাতে দুর্যোগপূর্ণ হাওয়া প্রবাহিত হওয়ায় এই ব্যাপক ক্ষতি সাধিত হয়েছে।
তিনি আরো জানান ক্ষতিগ্রস্থ কৃষকদের তালিকা করা হচ্ছে যদি সরকারিভাবে ক্ষতিগ্রস্থ কৃষকদের প্রণোদনার পদক্ষেপ গ্রহণ করেন। তাহলে কৃষি বিভাগ তা বাস্তবায়নে যথাযত ব্যবস্থা নিবে।

Spread the love
  •  
  •  
  •  

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ বিভাগের আরও খবর
themesba-lates1749691102