রবিবার, ০১ অগাস্ট ২০২১, ০২:৪১ পূর্বাহ্ন

রেফারির পায়ে বল, বিতর্কিত গোলে জয় ব্রাজিলের

কলমের বার্তা ডেস্ক:
  • সময় কাল : বৃহস্পতিবার, ২৪ জুন, ২০২১
  • ২৩ বার পড়া হয়েছে

বিতর্কিত গোলে কোপা আমেরিকায় কলম্বিয়ার বিরুদ্ধে জয় পেল ব্রাজিল। কোপা আমেরিকায় গ্রুপ বি থেকে ইতিমধ্যেই কোয়ার্টার ফাইনালে চলে গিয়েছেন নেইমাররা। লড়াই এখন গ্রুপ শীর্ষে থাকার। রোবের্তো ফির্মিনো ও ক্যাসেমিরোর গোলে কলম্বিয়াকে ২-১ গোলে হারিয়ে দিলো ব্রাজিল। কলম্বিয়ার হয়ে গোল করেন লুইস দিয়াজ।

১০ মিনিটের মাথায় কলম্বিয়াকে এগিয়ে দেন দিয়াজ। পোর্তোর হয়ে খেলা আক্রমণভাগের এই ফুটবলার অসাধারণ দক্ষতায় ব্যাক ভলি করে বল জালে জড়িয়ে দেন। জুভেন্টাসের হয়ে খেলা ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর সতীর্থ জুয়ান কুয়াদ্রাদোর ক্রস ছিল উইলমার বেরিওসের উদ্দেশে। তবে সেই বল চলে আসে দিয়াজের কাছে। চকিতে শরীর ছুড়ে দেন দিয়াজ। হাওয়ায় ভেসে থেকেই ওই বল ঢুকিয়ে দেন ব্রাজিলের গোলে। কিছু করার ছিল না গোলরক্ষক ওয়েভারটনের।

৭৮ মিনিটে সেই গোল শোধ করেন ফির্মিনো। ওই গোল নিয়ে তৈরি হয় বিতর্ক। নেইমারের গোলমুখি শট রেফারির পায়ে লেগে চলে আসে বদলি হিসেবে নামা রেনান লোদির কাছে। তার ক্রস থেকে হেডে গোল করেন ফির্মিনো। রেফারির পায়ে বল লাগায় কয়েক মুহূর্তের জন্য থেমে গিয়েছিল কলম্বিয়া। ওই সুযোগেই গোল করে ব্রাজিল। রেফারির কাছে তাই গোল বাতিল করার আবেদন জানান কুয়াদ্রাদোরা। কলম্বিয়ার গোলরক্ষক অস্পিনা রেফারিকে বোঝানোর চেষ্টা করতে থাকেন। কিন্তু লাভ হয়নি। হলুদ কার্ড দেখতে হয় তাকে। গোলের সিদ্ধান্তই দেন রেফারি।

৯৮ মিনিটের মাথায় আসে জয়ের গোল। নেইমারের কর্নার থেকে গোল করেন ক্যাসেমিরো। শুরু থেকে লড়াই করছিল কলম্বিয়া। দ্বিতীয়ার্ধে প্রচুর পাস খেলে বলের দখল নেন নেইমাররা। তবে গোলের সামনে এসে খেই হারিয়ে ফেলছিলেন। ওই সময় ফির্মিনোর গোল অক্সিজেন দেয় তাদের।

কোয়ার্টার ফাইনালের লড়াইয়ের আগে কিছু ফুটবলারকে দেখে নেয়ার চেষ্টা করছেন ব্রাজিল প্রশিক্ষক তিতে। আলিসন বা এদেরসন মোরেজের মতো গোলরক্ষক দলে থাকলেও তিনি নামিয়ে ছিলেন ওয়েভারটনকে। গত ম্যাচে পেরুকে হারানো ব্রাজিল দলের প্রথম একাদশের থেকে কলম্বিয়া ম্যাচে বেশ কিছু পরিবর্তন করেন তিতে। এ দিন তিনি প্রথম একাদশে নিয়ে এসেছিলেন গ্যাব্রিয়াল জেসুস, রিচার্লিসন, ক্যাসেমিরো, এভার্টন রিবেরিয়ো, মারকুইনাসের মতো ফুটবলারকে। ৪-৪-২ ছকে খেলতে নামা ব্রাজিল দলের আক্রমণের দায়িত্ব ছিল নেইমার এবং জেসুসের কাঁধে।

Spread the love
  •  
  •  
  •  

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ বিভাগের আরও খবর
themesba-lates1749691102