শনিবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৪:২১ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
হাসপাতালের দরপত্র জঠিলতায় থমকে আছে আইসিইউ-আইসোলেশন নির্মান কাজ উল্লাপাড়ার পূর্নিমাগাঁতী ইউনিয়নে নির্বাচনী উঠান বৈঠকে হাজার মানুষের ঢল ভালুকায় আকাঙ্খা ফাউন্ডেশন উদ্যোগে ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প লালমনিরহাটে “আলোকধেনু” স্মরনিকার মোড়ক উন্মোচন তাড়াশের মাধাইনগর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে নৌকার মাঝি হতে চান হাবিবুর  রহমান রায়গঞ্জে তাল বীজ রোপন কর্মসূচি উদ্বোধন মির্জাপুরে কোচ আদিবাসী সংগঠনের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত কোম্পানীগঞ্জের রহিমিয়া এতিমখানার নবগঠিত কমিটির পরিচিতি সভা অনুষ্ঠিত শাহজাদপুরে মেরিনা জাহান কবিতার মতবিনিময় শেখ হাসিনাকে অভিনন্দন জানিয়ে মমেক ছাত্রলীগের আনন্দ মিছিল

লালমনিরহাটে চলাচলের রাস্তা নিয়ে বিজিবি ও গ্রামবাসী মুখোমুখি

আশরাফুল হক, লালমনিরহাট :
  • সময় কাল : মঙ্গলবার, ২৭ জুলাই, ২০২১
  • ১১৪ বার পড়া হয়েছে

লালমনিরহাট জেলার হাতীবান্ধা উপজেলার তিস্তা ব্যারাজ এলাকায় অবস্থিত ৬১ বডার্র গার্ড বাংলাদেশ ( বিজিবি) তিস্তা ব্যাটালিয়ান-২ ক্যাম্পের পিছন দিয়ে চলাচলের রাস্তা নিয়ে স্হানীয় লোকজনের সাথে বিজিবি’র দ্বন্দ্ব দেখা দিয়েছে।

ওই দ্বন্দ্বের জের ধরে সোমবার ক্যাম্প এলাকায় স্থানীয় গ্রামবাসী ও বিজিবি’র লোকজনের মাঝে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। পরে হাতীবান্ধা থানার ওসি এরশাদুল আলমের মধ্যস্থতায় উভয় পক্ষের মাঝে আলোচনা করে সমঝোতা হয়। প্রত্যক্ষদর্শী ও স্থানীয়রা জানান, ওই বিজিবি ক্যাম্পের পিছনে পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্মিত তিস্তা নদীর একটি বাঁধের উপর দিয়ে ৬০/৭০ পরিবার চলাচল করেন। বেশ কিছু দিন ধরে ওই বাঁধের উপর দিয়ে চলাচলে বিভিন্ন সময় বাঁধা প্রদান করে ৬১ বডার্র গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)’র তিস্তা ব্যাটালিয়ান-২ ক্যাম্পের সদস্যরা।

বিষয়টি নিয়ে গত রোববার হাতীবান্ধা উপজেলা পরিষদের ভাইচ চেয়ারম্যান জেসমিন নাহার ও গড্ডিমারী ইউনিয়ন চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ আবু বক্কর সিদ্দিক শ্যামল ওই ক্যাম্পের পরিচালক লেঃ কর্ণেল মির হাসান শাহরিয়া মুহাম্মদের দেখা করতে যান। কিন্তু তিনি দেখা না করে তাদের ফিরিয়ে দেন। খবরটি এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে সোমবার সকালে স্থানীয় কয়েক শতাধিক লোক ক্যাম্পের কাছে উপস্থিত হয়ে বিক্ষোভ করেন। এতে ওই এলাকায় উত্তেজনা তৈরী হয়। খবর পেয়ে হাতীবান্ধা থানার ওসি এরশাদুল আলম ঘটনাস্থলে উপস্থিতি হয়ে উভয় পক্ষের সাথে কথা বলে সমঝোতা বসেন।

দুপুরে ওই সমঝোতা বৈঠক শেষ হলে ক্যাম্পের পরিচালক লঃ কর্ণেল মির হাসান শাহরিয়া মুহাম্মদ ও গড্ডিমারী ইউনিয়ন চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ আবু বক্কর সিদ্দিক শ্যামল জানান, এখন থেকে ওই বাঁধের উপর দিয়ে স্থানীয় লোকজন চলাচল করতে পারবে। তবে বহিরাগতরা চলাচল করে জটলা তৈরী করতে পারবে না। স্থানীয় ইউ-পি সদস্য মতিয়ার রহমান জানান, ওই বাঁধের উপর দিয়ে ৬০/৭০ পরিবার চলাচল করেন। কিন্তু কিছু দিন ধরে বিজিবি সদস্যরা চলাচলে বাঁধা দিচ্ছে। এতে স্থানীয় লোকজনের সমস্যা হচ্ছে। গড্ডিমারী ইউনিয়ন চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ আবু বক্কর সিদ্দিক শ্যামল বলেন, বিষয়টি নিয়ে আমি গতকাল বিজিবি’র সাথে কথা বলতে চেয়ে ছিলাম। কিন্তু তারা আমাদের সাথে কথা বলেনি। ফলে আজ স্থানীয় লোকজনের মধ্যে উত্তেজনা দেখা দেয়। পরে স্থানীয় সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মোতাহার হোসেনের সাথে কথা বলে ওই বাঁধের উপর দিয়ে চলাচলে বাঁধা দিবে না এমন শর্তে সমঝোতা হয়েছে।

৬১ বডার্র গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)’র তিস্তা ব্যাটালিয়ান-২ ক্যাম্পের পরিচালক লেঃ কর্ণেল মির হাসান শাহরিয়া মুহাম্মদ জানান, ওই বাঁধের উপর দিয়ে চলাচলে স্থানীয় লোকজনকে বিজিবি কখনো বাঁধা দেয়নি। করোনাকালীন সময় তাদের চলাচল সংকুচিত করতে অনুরোধের পাশাপাশি স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলাচল করতে বলা হলেই কিছু বহিরাগত লোকজন নানা অযুহাত তৈরী করছেন। আমরা স্থানীয় লোকজনের সাথে মিলেমিশে এখানে অবস্থান করছি। আজকের এ উত্তেজনা পরিস্থিতি বহিরাগত কিছু লোক সৃষ্টি করেছেন।

হাতীবান্ধা থানার ওসি এরশাদুল আলম এ নিয়ে কোনো কথা বলতে রাজি হয়নি। তিনি বলেন, ওই এলাকায় আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি যাতে অবনতি না হয় সেই দিকে সবাইকে সর্তক থাকতে অনুরোধ করেছি।

Spread the love
  •  
  •  
  •  

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ বিভাগের আরও খবর
এই নিউজ পোর্টাল এর কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ণ বেআইনি ও দণ্ডনীয় অপরাধ ।  About Us | Contact Us | Terms & Conditions | Privacy Policy
Design & Developed by Freelancer Zone
themesba-lates1749691102