শিরোনামঃ
আশা জাগাচ্ছে বায়ুবিদ্যুৎ ডিসেম্বরে ঘুরবে ট্রেনের চাকা মূল্যস্ফীতি হ্রাসে ব্যাংক থেকে ঋণ কমাতে চায় সরকার বদলে যাবে হাওরের কৃষি বাংলাদেশে নতুন জলবায়ু স্মার্ট প্রাণিসম্পদ প্রকল্প চালু যুক্তরাষ্ট্রের ‘তথ্য দেওয়ার জন্য বাংলাদেশ ব্যাংকে ৩ জন মুখপাত্র নিয়োগ দেওয়া হয়েছে’ অস্বস্তি কাটিয়ে যুক্তরাষ্ট্র-বাংলাদেশ সম্পর্কে নতুন মোড় এমপিদের শুল্কমুক্ত গাড়ি আমদানি সুবিধা উঠে যাচ্ছে ভূমি অধিগ্রহণ জটিলতা দূর ৫০০ একর খাসজমি বরাদ্দ স্বাধীনতাবিরোধীদের পদচিহ্নও থাকবে না: রাষ্ট্রপতি আজ জাতীয় এসএমই পণ্য মেলা উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী দশতলা বিল্ডিং এর ছাদ থেকে লাফ দিয়ে নারী পোশাক শ্রমিকের মৃত্যু বাগবাটি রাজিবপুর অটিস্টিক ও বুদ্ধি প্রতিবন্ধী স্কুলে হুইল চেয়ার বিতরণ সিরাজগঞ্জ পৌরকর্মচারী ইউনিয়নের দ্বি-বার্ষিক নির্বাচন অনুষ্ঠিত  কাজিপুর খাদ্য গুদামে অভ্যন্তরীণ বোরো -ধান চাউল সংগ্রহ এর উদ্বোধন আদিতমারীতে ধান-চাল ক্রয়ের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন ঠাকুরগাঁওয়ে শিশু নিবির হত্যা মামলায় গ্রেফতার আরেক শিশু বেনাপোল সীমান্তের চোরা পথে ভারতে যাবার সময় মিয়ানমার নাগরিকসহ আটক-৪ বিয়েতে রাজি না হওয়ায় আত্নহত্যা, প্রতিপক্ষকে ফাঁসাতে হত্যা মামলা সিরাজগঞ্জে সাংবিধানিক ও আইনগত অধিকার বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত

পদ্মা সেতুতে প্রতি মাসে টোল আদায় হবে ১৫০ কোটি টাকা

কলমের বার্তা / ১৭৫ বার পড়া হয়েছে।
সময় কাল : বৃহস্পতিবার, ৯ জুন, ২০২২

স্বপ্নের পদ্মা সেতুর জন্য আর বাজেট বরাদ্দ লাগছে না। আজ ৯ জুন সংসদে ২০২২-২৩ অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেট উপস্থাপন করবেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল। প্রস্তাবিত বাজেট পাস হওয়ার আগেই আগামী ২৫ জুন বহু কাক্সিক্ষত গৌরবের পদ্মা সেতু উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ২৬ জুন থেকে সেতুর ওপর দিয়ে সব ধরনের যানবাহন চলাচল শুরু হবে। সংশ্লিষ্টরা আশা করছেন, সেতু ব্যবহারকারী বিভিন্ন ধরনের গাড়ি থেকে প্রতি মাসে টোল আদায় হবে প্রায় ১৫০ কোটি টাকা।

অর্থাৎ বছরে দেড় হাজার কোটি টাকার অতিরিক্ত রাজস্ব সরকারের কোষাগারে যোগ হবে। সমৃদ্ধির প্রতীক পদ্মা সেতুর আয় দিয়ে সারাদেশে গড়ে উঠবে নতুন নতুন অবকাঠামো। এছাড়া ব্যবসা-বাণিজ্য, বিনিয়োগ ও কর্মসংস্থানের নতুন দ্বার উন্মোচিত হবে। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, একটি স্বপ্নের সফল বাস্তবায়ন হচ্ছে আজকের পদ্মা সেতু। নিজস্ব অর্থায়নে নির্মিত হওয়ায় সেতু থেকে আয় হওয়া রাজস্বের সবটুকু দেশেই বিনিয়োগ হওয়ার সুযোগ তৈরি হয়েছে। বিদেশী অর্থে করা হলে ঋণ ও সুদ পরিশোধে বড় অংশ ব্যয় করতে হতো।

এদিকে ‘২০১৪-২০২২ সাল’-মাত্র আট বছরের ব্যবধানে দেশের সবচেয়ে বড় অবকাঠামো পদ্মা সেতুর নির্মাণ কাজ শেষ করা হয়েছে। এর আগে সেতু নিয়ে দেশীয়-আন্তর্জাতিক ষড়যন্ত্র ও বিতর্ক মোকাবেলা করতে হয়েছে সরকারকে। তবে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় সম্পূর্ণ নিজস্ব অর্থায়নে পদ্মা সেতুর নির্মাণ কাজ শুরু হয় ২০১৪ সালের নবেম্বর মাসে। আর এ কারণে ২০১৩-১৪ অর্থবছরের বাজেটে প্রথমবারের মতো সরকার পদ্মা সেতুর জন্য বাজেট বরাদ্দ দিয়েছিল। সেই থেকে শুরু হয়ে দ্রুতগতিতে পদ্মা সেতুর নির্মাণ কাজ সম্পন্ন করা হয়েছে। শুরুতে দেশের শীর্ষ পর্যায়ের কয়েকজন অর্থনীতিবিদ ও শিল্পোদ্যোক্তা পদ্মা সেতুর জন্য এই অর্থ বরাদ্দ করায় সামাজিক ও অবকাঠামো খাতে অন্যান্য অগ্রাধিকারভিত্তিক প্রকল্প ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করেছিলেন। তাদের সেই আশঙ্কার মধ্যেই দ্রুত এগিয়ে চলেছে সেতু নির্মাণের কাজ। এবার উদ্বোধনের পালা। আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, আগামী ২৫ জুন প্রধানমন্ত্রী স্বপ্নের পদ্মা সেতু উদ্বোধন করবেন। এরপরই সেতুটি যানবাহন চলাচলের জন্য খুলে দেয়া হবে। সব ধরনের ষড়যন্ত্র ও বিতর্ক মোকাবেলা করে সমৃদ্ধির প্রতীক পদ্মা সেতু এখন আরও স্বপ্ন নয়, বাস্তব। পদ্মা সেতু বাস্তবায়নের মধ্য দিয়ে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ সরকার তাদের আরেকটি নির্বাচনী অঙ্গীকার পূরণ করতে সক্ষম হয়েছে।

115


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো খবর